1. netpeonbd@gmail.com : Desk Report : Desk Report
  2. netpeoneditor@gmail.com : Desk Report : Desk Report
  3. admin@irisnewsbd.com : irisnewsbd : Ali Siddiki
  4. naimurrahman4969@gmail.com : naimur rahman naeem : naimur rahman naeem
  5. raju.aamar.fm@gmail.com : Raisul Islam Chowdhury : Raisul Islam Chowdhury
  6. azizul.basir@gmail.com : Azizul Basir : Azizul Basir
  7. mdriyadhasan700@gmail.com : Riyad hasan : Riyad hasan
বাংলাদেশের বেসরকারী রেডিও ইন্ডাস্ট্রি যেন বাবা-মা হারা এতিম সন্তান !! - Iris News
বুধবার, ২০ অক্টোবর ২০২১, ০৬:৪৪ পূর্বাহ্ন

বাংলাদেশের বেসরকারী রেডিও ইন্ডাস্ট্রি যেন বাবা-মা হারা এতিম সন্তান !!

বিশেষ প্রতিনিধি
  • তথ্য হালনাগাদের সময়ঃ বৃহস্পতিবার, ১ জুলাই, ২০২১
  • ১০১ প্রদর্শিত সময়ঃ
বাংলাদেশের বেসরকারী রেডিও ইন্ডাস্ট্রি যেন বাবা-মা হারা এতিম
বাংলাদেশের বেসরকারী রেডিও ইন্ডাস্ট্রি যেন বাবা-মা হারা এতিম

এদেশে বেশ ঢাক ঢোল পিটিয়ে যাত্রা শুরু করেছিলো বেসরকারি রেডিও, ২০০৬ সালে রেডিও টুডের হাত ধরে যার জয় জাত্রা শুরু হয়। এ দেশে রেডিও টুডেই মানুষ কে শিখিয়েছে এফ এম শুনতে। রেডিও টুডের ব্যবসায় ভাগ বসাতে এর পর আসে রেডিও ফুর্তি। তার পর রেডিও আমার । এর বেশ কিছু দিন পর এবিসি রেডিও। এ পর্জন্ত সব ঠিক ছিলো। যে যার মত ব্যাবসার পাশাপাশি নিজেদের একটি অবস্থান তৈরি করে নিচ্ছিলো।

তার পরই শুরু হুলো মুড়ি মুড়কির মত রেডিও স্থাপনা। যাদের জীবনে কোন অভিজ্ঞতা নেই মিডিয়া ব্যবসায় তারাও টিভির সাথে রেডিও শুরু করে দিলো। ডানে বামে রেডিও, উঠতে বসতে রেডিও। অথচ এসব রেডিও কিভাবে পরিচালিত হবে কারা কাজ করবে, যোগ্য লোক বল আছি কিনা, মার্কেটে চাহিদা আছে কিনা কোন ধরনের কোন রিসার্চ নেই। মামা-চাচা,ভাই-খালু দিয়ে যে গণমাধ্যম চলতে পারে না তা এখন সবাই হাড়ে হাড়ে টের পাচ্ছে। এক মাত্র রেডিও টুডে প্রথম থেকে এই ব্যবসা কে সিরিয়াসলি নিয়েছে যার কারণে “নেশন ওয়াইড” তাদের ব্রডকাস্টে তারা প্রথম থেকেই বিনিয়োগ করেছে, যার সুফল তারা এখন কিছুটা হলেও পাচ্ছে। আর বাকিরা হেটেছে সম্পুর্ন ভিন্ন পথে। যার জন্য রেডিও স্থাপন করেও অনেকে চালাতে না পেড়ে বন্ধ করে দিয়েছে। নিটল এর মত বড় গ্রুপ তাদের রেডিও বন্ধ করে দিয়েছে, এশিয়ান অনেক আগেই বন্ধ, এই পথে যুক্ত হয়েছে ঢোল ।

রেডিও আমার জন্ম থেকে মাত্র একটা স্টেশন নিয়ে ধুকে ধুকে চলছে। এতো বছরেও তারা সামনে এগুতে পাড়েনি। যুগের সাথে তাল মিলিয়ে রেডিও আধুনিকায়নে খুব কম কাজ হয়েছে এদেশে । বলা যায় কাজ শূনের কাছা কাছি। এই পথে সবচেয়ে বেশি যাদের ক্ষতি হয়েছে তারা হলো এখানে যারা কাজ করতো। এদের খবর কেউ রাখে না । কত ছেলে মেয়ে বছরের পর বছর কাজ করে এক টাকা ও বেতন পায়নি এমন উদাহরন অহরহ। এদের দেখার কেউ নেই। মালিক পক্ষ্য ক্ষমতার খুব কাছে থাকে বলে এই সব ছেলে মেয়ে কিছুই করতে পারে না।

অন্য গণমাধ্যমগুলোতে তাদের সংগঠন আছে, সরকারি ওয়েজ বোর্ড আছে কিন্তু এফ এম রেডিও তে কিছুই নেই। যেন মা বাবা ছাড়া এতিম এক সন্তান যার ভালো মন্দ দেখার কেউ নেই । অথচ পৃথিবীর অন্য কোন দেশে এমন উদাহরন আছে কিনা আমার জানা নেই। যদি প্রতিষ্ঠান চালানোর সক্ষমতা না থাকে তাহলে তারা লাইসেন্স কেনো নেয় ? আর এই সেক্টরে যেসকল ছেলে মেয়ে কাজ করে তাদের প্রতি কি মালিক বা সরকারের এর কোন দায়িত্ব নেই ?? এই ইন্ডাস্ট্রির ভবিষ্যৎ কি তাহলে শুধুই অন্ধকার।

খবরটি আপনার স্যোশাল টাইমলাইনে শেয়ার করুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই জাতীয় আরও অন্যান্য খবর

কপিরাইট © ২০২১ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । আইরিস নিউজ বিডি.কম,আইরিস মিডিয়া বাংলাদেশের একটি  প্রতিষ্ঠান ।

error: Content is protected !!